ঘন কুয়াশার চাদরে আবৃত ভূরুঙ্গামারীর আকাশ,বেড়েছে শীতের তীব্রতা

 

উত্তরের জেলা কুড়িগ্রামের ভূরুঙ্গামারীতে আবারও শীতের তীব্রতা বেড়েছে। ঘন কুয়াশায় ঢাকা  থাকছে গোটা উপজেলা। বৃষ্টির মতো পড়ছে কুয়াশা। ঘন কুয়াশার প্রভাবে অনুভূত হচ্ছে তীব্র শীত। এতে খেটে খাওয়া মানুষগুলো পড়েছে বিপাকে। খড়কুটো জ্বালিয়ে শীত নিবারণের চেষ্টা করছে সাধারণ মানুষ। রাতের বেলায় বৃষ্টির মতো টপ টপ শব্দে কুয়াশা পড়ছে। রাতে তাপমাত্রা থাকছে ৮ থেকে ১০ ডিগ্রী সেলসিয়াস।সারা দিনে মাত্র ২-৩ঘন্টা সূর্যের দেখা পেয়েছে ভূরুঙ্গামারীর আকাশ।

 


 

দুপুরে উত্তাপহীন সূর্যের দেখা মিললেও বিকেল থেকেই কুয়াশার আবহ শুরু হয়। ফলে কনকনে ঠান্ডা অনুভূত হয়েছে সারা দিন। তীব্র ঠান্ডা ও ঘন কুয়াশার কারণে হেডলাইট জ্বালিয়ে সড়ক ও মহাসড়কে যান চলাচল করছে ।  এ সময় যানবাহন গুলোকে কম গতিতে চলাচল করতে দেখা গেছে। তবে জীবন-জীবিকার তাগিদে হাড়কাঁপানো শীতকে উপেক্ষা করে খুব সকালে কাজের সন্ধানে রাস্তায় বের হয়েছেন নিম্নআয়ের খেটে খাওয়া মানুষ।

উপজেলার পাইকেরড়া ইউনিয়নের পাইকের ছড়া গ্রামের রিক্সা  চালক রহিম  (৪০) বলেন, পেটের দায়ে এই কুয়াশা ও শীতের মধ‍্যে রিক্সা  নিয়ে বের হইছি। কিন্তু রাস্তায় লোকজন নাই। তাই ঠান্ডায় যাত্রী পাওয়া মুশকিল।

সোনাহাট স্থলবন্দরে  শ্রমিকের কাজ করেন ছাত্তার,রহিমা ও মালেকা বেগম জানান,কাজ না করলে খাবো কি? তাই খুব ঠান্ডা ও কুয়াশার মধ‍্যে কাজে এসেছি।

 


কুড়িগ্রামের রাজারহাট  আবহাওয়া পর্যবেক্ষণাগারের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সুবল চন্দ্র জানান, মঙ্গলবার সকালে কুড়িগ্রামে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১১ দশমিক ৪ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছে। বাতাসে জলীয়বাষ্প বেশি থাকায় ঘন কুয়াশা পড়ছে।

 


 493 total views,  2 views today

Leave a Reply

Your email address will not be published.